শিরোনাম
কেতকীবাড়ি চান্দখানার রাস্তার বেহাল দশা দেখার কেউ নেই ছাত্র আন্দোলন আমিরাবাড়ী ইউনিয়নের আহবায়ক কমিটি ঘোষণা ফুলবাড়িয়ায় জাতীয় পার্টির নেতার স্বরণ সভা ও দোয়া মাহফিল ভূঞাপুরে অবৈধভাবে ড্রেজার দিয়ে বালু উত্তোলনের দায়ে ৩জনকে কারাদণ্ড এবার নেত্রকোনায় ৩ নবজাতকের নাম রাখা হলো স্বপ্ন ,পদ্মা ও সেতু: নির্মাণ শেষ হওয়ার আগেই দেবে গেলো সাড়ে তিন কোটি টাকার সেতু সুনামগঞ্জে ১৫ দিনের ব্যবধানে দ্বিতীয় দফায় ভয়াবহ বন্যা, বিপাকে লক্ষ লক্ষ মানুষ নেত্রকোনায় বৃষ্টিপাত অব্যাহত, বেড়ে চলেছে নদ-নদীর পানি টাঙ্গাইলে ১৮ ইউপি নির্বাচনে আ.লীগ ১১, বিদ্রোহী ও স্বতন্ত্র ৭ টাঙ্গাইলে কিলোমিটার পোস্টে ‘বঙ্গবন্ধু’ বানান ভুল

টাকার বদলে সফরের অভিযোগ অস্বীকার উইন্ডিজ বোর্ডের

  • আপডেট রবিবার, ১৪ জুন, ২০২০
  • ১৪৩ দেখেছে

গত মে মাসে ইংল্যান্ড অ্যান্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ডের (ইসিবি) কাছ থেকে ৩০ লাখ মার্কিন ডলার ধার নিয়েছে ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজ। করোনাভাইরাসের কারণে বাধ্য হয়েই ইসিবির কাছ থেকে অর্থ ধার নিতে হয়। ওই অর্থ দিয়ে খেলোয়াড়দের বেতন-ভাতা ও ম্যাচ ফি পরিশোধ করে উইন্ডিজ বোর্ড। কিন্তু তাতে সফরে যাওয়ার কোনো শর্ত ছিল না বলে জানান উইন্ডিজ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি রিকি স্কেরিট।

আইসিসির কাছ থেকে না পাওয়ায় বাধ্য হয়েই ইসিবির কাছে থেকে অর্থ ধার নেয় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। এতোদিন সেই ধার নেয়া টাকা নিয়ে কোনো কথা উঠেনি। কিন্তু এখন উঠল। কারণ করোনাভাইরাসের মধ্যেও টেস্ট সিরিজ খেলতে এখন ইংল্যান্ডে রয়েছে ক্যারিবীয়রা। তাই প্রশ্ন উঠেছে, পরিস্থিতি অনুকূলে না থাকার পরও ইংল্যান্ডে খেলতে যাবার শর্তেই কি ক্যারিবীয়দের টাকা ধার দিয়েছিল ইসিবি?

কিন্তু এমন অভিযোগ অস্বীকার করে স্কেরিট বলেন, ‘এই সফরটি কখন হবে, সেটিই মূখ্য ছিল এবং তবে ইসিবি যদি আমাদের মেডিকেল বিশেষজ্ঞদের আশ্বস্ত করতে পারে যে, খেলোয়াড় ও স্টাফদের স্বাস্থ্য নিরাপত্তা ন্যূনতম ঝুঁকি থাকছে না। এখানে অর্থ কোনো বিষয়ই নয়। সফরটি করার সাথে অর্থের কোন সর্ম্পকই ছিল না। বেতন বন্ধ রাখার কোন ব্যবসা করার উপায় নেই ওয়েস্ট ইন্ডিজ বোর্ডের।’

স্কেরিট আরও বলেন, ‘আমাদের জরুরিভাবে নগদ অর্থের প্রয়োজন ছিল। আইসিসির সাথে যোগাযোগ করে বুঝতে পেরেছিলাম, অনুমোদন পেতে অনেক সময় লেগে যাবে এবং তখন বোর্ডের নগদ অর্থের কোন উৎস ছিল না। তখন জুলাইয়ে ফেরত দেয়ার শর্তে ইসিবি নগদ অর্থ দিতে রাজি হয়েছিল। আইসিসির ফিন্যান্সসিয়াল কর্মকর্তারা এমন চুক্তিতে সর্বদা সচেতন ছিলেন এবং দ্রুত ধারের চুক্তিতে রাজি হন।’

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই সংক্রান্ত আরও খবর

ফেইসবুক পেজ

error: Content is protected !!