শিরোনাম
এবার নেত্রকোনায় ৩ নবজাতকের নাম রাখা হলো স্বপ্ন ,পদ্মা ও সেতু: নির্মাণ শেষ হওয়ার আগেই দেবে গেলো সাড়ে তিন কোটি টাকার সেতু সুনামগঞ্জে ১৫ দিনের ব্যবধানে দ্বিতীয় দফায় ভয়াবহ বন্যা, বিপাকে লক্ষ লক্ষ মানুষ নেত্রকোনায় বৃষ্টিপাত অব্যাহত, বেড়ে চলেছে নদ-নদীর পানি টাঙ্গাইলে ১৮ ইউপি নির্বাচনে আ.লীগ ১১, বিদ্রোহী ও স্বতন্ত্র ৭ টাঙ্গাইলে কিলোমিটার পোস্টে ‘বঙ্গবন্ধু’ বানান ভুল বঙ্গবন্ধুর যে স্বপ্ন ছিল পদ্মা সেতু তার কন্যার নেতৃত্বে বাস্তবায়িত হচ্ছে : শেখ হেলাল গোয়াইনঘাটে আবারও বন্যায় বিপর্যস্ত জনজীবন, বাড়ছে পানি দোয়ারাবাজারে নৌকা ডুবে স্কুল শিক্ষার্থী ভাই বোনের মৃত্যু সুনামগঞ্জে বন্যার পানিতে ৫ টি উপজেলা প্লাবিত, হাওরে নৌকা ডুবিতে ভাই বোনের মৃত্যু

যে ৫০টি স্বপ্নের কথা লিখেছিলেন পর্দার ‘ধোনি’ সুশান্ত সিং রাজপুত

  • আপডেট সোমবার, ১৫ জুন, ২০২০
  • ২৩৫ দেখেছে

বলিউড ব্লকবাস্টার অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। রোববার মুম্বাইয়ের বান্দ্রার বাড়ি থেকে তার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। মৃত্যুর পর তার বাড়ি থেকে কোনও সুইসাইড নোট উদ্ধার করতে পারেননি পুলিশ। তবে সোশ্যাল মিডিয়া ইন্সটাগ্রামে উঠে এসেছে ২০১৯ এ পোস্ট করা অভিনেতার নিজের হাতে লেখা একটি নোট। যেখানে জীবনের ৫০টি স্বপ্নের কথা লিখেছিলেন পর্দার ‘ধোনি’।

কী কী স্বপ্ন দেখতেন সুশান্ত?

সুশান্ত নিজের হাতে ৫০টি স্বপ্নের কথা লিখে একটি উইশলিস্ট তৈরি করেছিলেন। যার ছবি তুলে তিনি ২০১৯ সালে ফেসবুকে পোস্ট করেন।

সুশান্তের এই ৫০টি স্বপ্নের মধ্যে ছিল বিমান ওড়ানো, বাঁহাতে ক্রিকেট ব্যাট করা, ট্রেনে করে গোটা ইউরোপ ঘোরা, ইসরো ও নাসাতে ১০০ জন শিশুকে ওয়ার্কশপের জন্য পাঠানো, প্রত্যেক মহিলাকে আত্মরক্ষার শিক্ষা দেওয়া, শিশুদের নাচ শেখানো, কোনও চ্যাম্পিয়নের সঙ্গে দাবা খেলা, ভারতীয় প্রতিরক্ষা বাহিনীর জন্য শিক্ষার্থীদের তৈরি করাসহ আরও অনেক কিছু।

সুশান্তের এই পোস্টের নিচে অনেকেই বিভিন্ন কমেন্ট করেছেন।

কেউ লিখেছেন, ‘অভিনেতা কত ইতিবাচক দৃষ্টিভঙ্গিতে জীবনকে দেখতেন।’

কেউ আবার লিখেছেন ‘হাতের লেখা কী সুন্দর।’

কারো আবার এমন মন্তব্য, ‘সুশান্ত নেই সেটা ভাবতেই পারছি না।’

সুশান্তের এই সকল স্বপ্নের দিকে ধীরে ধীরে এগোচ্ছিলেন তিনি। কিন্তু তার আগেই জীবনযুদ্ধে হেরে গেলেন সুশান্ত সিং রাজপুত।

সুশান্তের স্বপ্ন নিয়ে টেনিস তারকা সানিয়া মির্জা এক টুইট বার্তায় বলেছেন, ‘সুশান্ত তুমি তো বলেছিলে একদিন আমার সঙ্গে টেনিস খেলবে। তুমি এত হাসিখুশি, প্রাণবন্ত ছিলে, যেখানে যেতে সেখানেই সবাইকে খুশি রাখতে পারতে। কখনও বুঝতেই দিতে না, এত কষ্ট তোমার। গোটা বিশ্ব তোমাকে মিস করবে। এটা লেখার সময়ও কেঁপে উঠছি আমি। হে বন্ধু ভাল থেকো।’

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই সংক্রান্ত আরও খবর

ফেইসবুক পেজ

error: Content is protected !!